অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকায় স্বাস্থ্যঝুঁকির বিষয়টি ভিত্তিহীন: ডব্লিউএইচও

4

 

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার করোনার টিকা নিয়ে উদ্বেগ বাড়ছে ইউরোপে। ইইউর সাত দেশে এই টিকার প্রয়োগ আপাতত স্থগিত রাখা হয়েছে। তবে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা- ডব্লিউএইচও বলছে, টিকাটির বিরুদ্ধে ওঠা স্বাস্থ্যঝুঁকির অভিযোগ ভিত্তিহীন। ভ্যাকসিন কার্যক্রম চালু রাখার আহ্বান জানিয়েছে সংস্থাটি।অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার করোনার টিকা যখন বিশ্বের বিভিন্ন দেশে সফলভাবে প্রয়োগ চলছে, ঠিক সেসময় এ নিয়ে বিতর্ক তৈরি করছে ইউরোপের বেশ কয়েকটি দেশ। দেশগুলোর দাবি, ব্রিটেনের এই ভ্যাকসিন- গ্রহণকারীর শরীরে রক্ত জমাট বাধায়। আর এ নিয়েই উদ্বেগ জার্মানি, ফ্রান্স, ইতালি, স্পেন, নেদারল্যান্ডসসহ আরও কয়েকটি দেশের। এ তালিকায় আছে ডেনমার্ক, নরওয়ে, বুলগেরিয়া, আইসল্যান্ড, আয়ারল্যান্ড ও এশিয়ার থাইল্যান্ডও।

তবে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বলছে, দেশগুলোর সিদ্ধান্ত একেবারেই অযৌক্তিক। এমন সিদ্ধান্তের কোনো মানেই হয় না।

ইউরোপের দেশগুলোকে অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকার ব্যবহার জারি রাখতে আহ্বান জানিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। তারা বলছে, রক্ত জমাট বাধার সঙ্গে টিকার পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ার কোনো সম্পর্ক নেই।তবুও টিকার নিরাপত্তা নিয়ে সংস্থাটি মঙ্গলবার জরুরি বৈঠক করবে। আলাদা বৈঠক করবে ইইউর মেডিসিন এজেন্সিও।

ইউরোপীয় ইউনিয়ন ও যুক্তরাজ্যের প্রায় এক কোটি ৭০ লাখ মানুষ এই টিকা এরই মধ্যে গ্রহণ করেছেন। এর মধ্যে রক্ত জমাট বাধার ঘটনা মাত্র কয়েকশ।

ব্রিটেনের মেডিসিন্স অ্যান্ড হেলথকেয়ার প্রোডাক্ট রেগুলেটরি এজেন্সি বলছে, ভ্যাকসিন সমস্যা তৈরি করছে এমন কোনো প্রমাণ তাদের কাছে নেই।