মুজিব বর্ষ ডিসি কাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের উদ্বোধন

5

রাকিবুল ইসলাম : সাতক্ষীরায় ” মুজিববর্ষ ডিসি কাপ ফুটবল টুর্ণামেন্ট ২০২১” এর আনুষ্ঠানিক শুভ উদ্বোধন হয়েছে। সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসনের আয়োজনে বৃহস্পতিবার (১৮ মার্চ) বিকাল ৩টায় সাতক্ষীরা স্টেডিয়ামে ” মুজিববর্ষ ডিসি কাপ” ৮ দলীয় ফুটবল টুর্ণামেন্টের আনুষ্ঠানিক শুভ উদ্বোধন অনুষ্ঠিত হয়।

সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক এসএম মোস্তফা কামাল’র সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে অনলাইনে যুক্ত হয়ে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন যুব ও ক্রীড় মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী মোঃ জাহিদ আহসান রাসেল এমপি।

অনলাইনে যুক্ত হয়ে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন সাতক্ষীরা-৩ সংসদ সদস্য সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী অধ্যাপক ডা: আ.ফ.ম রুহুল হক, সাতক্ষীরা-০২ আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন সাতক্ষীরা জেলা পরিষদের প্রধান নির্বহী কর্মকর্তা আহসান হাবিব, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামী লীগের যুগম-সম্পাদক আলহাজ্ব আসাদুজ্জামান বাবু, সাতক্ষীরা জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক বদরুল ইসলাম খান, জেলা ফুটবল এসোসিয়েশনের সভাপতি শেখ নাসেরুল হক।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন সাতক্ষীরা অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) সদ্য পদন্নতি প্রাপ্ত উপসচিব এমএম মাহমুদুর রহমান, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) সদ্য পদন্নতি প্রাপ্ত উপসচিব বদিউজ্জামান, এএসপি (সদর সার্কেল) শামসুল আলম, সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার দেবাশীষ চৌধুরী, ফিফা রেফারী তৈয়ব হাসান বাবু।

এছাড়া উপস্থিত ছিলেন সাতক্ষীরা জেলা ক্রীড়া সংস্থার যুগসম্পাদক সাইদুর রহমান শাহিন, জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক কাজী আক্তার হোসেন, জনস্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক ডা.সুব্রত ঘোষ, জেলা ফুটবল এসাসিয়েশসনের সাধারণ সম্পাদক খন্দকার আরিফ হাসান প্রিন্স, মীর তাজুল ইসলাম রিপন, আলতাফ হোসেন প্রমুখ।

মুজিববর্ষ ডিসি কাপ ফুটবল টুর্ণামেন্টের উদ্বোধনী ম্যাচে সাতক্ষীরা সদর উপজেলা ফুটবল দল বনাম কালীগঞ্জ উপজেলা ফুটবল দলের একে অপরের মুখোমুখি হয়। নির্ধারিত ৯০ মিনিটের খেলার প্রথমার্ধে গোল শুন্য ভাবে শেষ হয়। দ্বিতীয়ার্ধে ২-২ গোলে ম্যাচ ড্র হয়। পরে ট্রাইব্রেকারে মাধ্যমে কালীগঞ্জ উপজেলা ফুটবল দল কে ৫-৩ গোলে পরাজিত করে সদর উপজেলা ফুটবল দল জয়লাভ করে। খেলায় প্রধান রেফারী হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন জাহাঙ্গীর কবির। সহকারি রেফারী ছিলেন মিজানুর রহমান ও ফারুখ হোসেন স্বপন এবং চতুর্থ রেফারী ছিলেন বিশ্বজিৎ।