শত সংকটেও বাড়ি ফিরা হচ্ছেনা তাদের

5

ন্যাশনাল ডেস্কঃ দেশব্যাপী সাত দিনের কঠোর লকডাউনের আগ মুহূর্তে বাড়ি ফিরছেন নিম্ন আয়ের মানুষরা। তবে দূরপাল্লার যানবাহন বন্ধ থাকায় চরম দুর্ভোগে পড়েছেন তারা। যে যেভাবে পারছেন ঢাকা ছাড়ছেন। ট্রাক, কাভার্ডভ্যান ও মোটরসাইকেলে করেও যাত্রা করতে দেখা গেছে অনেককে। এদিকে, সড়কে যে কোনো অনাকাঙ্খিত ঘটনা রুখতে কঠোর অবস্থানে রয়েছে পুলিশ।মঙ্গলবার (১৩ এপ্রিল) ভোর থেকেই রাস্তার মোড়ে মোড়ে অসংখ্য মানুষ বাড়ি ফেরার অপেক্ষায় রয়েছেন। একদিকে পরিবহন সংকট অন্যদিকে লকডাউনে নগরীতে জীবিকা সংকট। ঢাকা না গ্রাম; উভয় সংকটে শ্রমজীবীরা। অন্যদিকে সড়ক-মহাসড়কে যে কোনো অনিরাপদ যাত্রা ঠেকাতে মাঠে কাজ করছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।রাজধানীর গাবতলী, আব্দুল্লাহপুর, যাত্রাবাড়ী, সায়েদাবাদ ও মহাখালীতেও ঘরমুখী মানুষদের অপেক্ষা করতে দেখা গেছে।রফিকুল ইসলাম নামে একব্যক্তি জানান, ঢাকার রাজারবাগ এলাকায় রিকশা চালান তিনি। বুধবার থেকে রাজধানীসহ সারাদেশে কঠোর লকডাউন হবে। সরকারের এমন ঘোষণায় ঢাকায় থেকে কী করবেন তাই ঢাকা ছেড়ে যেতে চান পরিবারের কাছে। কিন্তু এখানে গন্তব্য যেন অনিশ্চয়তার হাতছানি। আদৌ যেতে পারবেন কি-না জানেন না তিনি।রফিকুলের মতো হাজারো নিম্ম আয়ের মানুষ ও দিনমজুর সোমবার রাতভর আপন গন্তব্যে যেতে জড়ো হন নগরীর বিভিন্ন পয়েন্টে। যদিও দূরপাল্লার সব ধরনের পরিবহন বন্ধ রয়েছে। তারপরও জীবিকা সঙ্কটের আতঙ্কে যেভাবে পারছেন নগরী ছাড়ছেন এসব নিম্ন আয়ের মানুষ। রাস্তায় ট্রাক, কাভার্ডভ্যান কিংবা প্রাইভেটকার দেখলেই হাত বাড়ান তারা। অতিরিক্ত ভাড়া দিয়েও বাড়ি ফিরতে চান। তবে যানবাহন সংকট ঘরমুখী মানুষের দুর্ভোগ বাড়িয়ে দিয়েছে কয়েকগুণ।