পুরান ঢাকায় কেমিক্যাল গোডাউনে আগুন : নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৪

5

 

লিংক বিডি ডেস্ক: রাজধানীর বাবুবাজার ব্রিজের পাশে আরমানিটোলায় ছয়তলা হাজী মুসা ম্যানসন ভবনের রাসায়নিকের একটি গুদামে আগুন লেগেছে। বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত সোয়া ৩টার দিকে আগুন লাগে। পরে ফায়ার সার্ভিসের ১৯টি ইউনিটের চেষ্টায় সকাল সাড়ে ছয়টার দিকে আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে। আগুনে ইডেন কলেজের এক ছাত্রীসহ মোট চারজনের মৃত্যু হয়েছে। আহত হয়েছেন আরও কয়েকজন।

ভবনটির ৬ তলার চিলেকোঠা থেকে নতুন করে উদ্ধার হওয়া দুটি মরদেহের মধ্যে একটি ভবনের নিরাপত্তাকর্মী ওলিউল্লাহ ব্যাপারির। আরেকজনের পরিচয় শনাক্ত হয়নি।

এর আগে ফায়ার সার্ভিস অ্যান্ড সিভিল ডিফেন্স অধিদপ্তরের পরিচালক (অপারেশন ও মেইনটেন্যান্স) লেফটেন্যান্ট কর্নেল জিল্লুর রহমান আগুনে দুইজন নিহত হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

জানা যায়, রাত সোয়া ৩টার দিকে আরমানিয়ান স্ট্রিটের হাজী মুসা ম্যানসনে আগুনের সূত্রপাত ঘটে। ওই ভবনের দোতলা থেকে পাঁচতলা পর্যন্ত লোকজন বসবাস করে। আগুন লাগার পর ভবনের ছাদে কিছু লোক আটকা পড়ে।

খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের মোট ১৯টি ইউনিট আগুন নেভানোর কাজে অংশ নেয়। প্রায় সোয়া তিন ঘণ্টার চেষ্টায় শুক্রবার ভোর সাড়ে ছয়টার দিকে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে দমকল বাহিনী।

মারা যাওয়া দুইজনের মধ্যে একজনের নাম সুমাইয়া আক্তার। তিনি ইডেন মহিলা কলেজের তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী। পরিবারের সঙ্গে ভবনটির চারতলায় থাকতেন তিনি। আগুনে অচেতন হওয়ার পর মিটফোর্ড হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

নিহত অপরজনের নাম রাসেল মিয়া। তার গ্রামের বাড়ি চাঁদপুরের ফরিদগঞ্জ। তিনি ভবনটির দারোয়ান।

আগুন লাগার ঘটনায় বেশ কয়েকজন আহত হয়েছেন। তাদের ঢাকা মেডিকেল হাসপাতাল ও মিটফোর্ড হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

প্রাথমিকভাবে আগুনের কারণ জানা যায়নি। ঘটনা তদন্তে চার সদস্যের কমিটি গঠন করা হয়েছে। ১০-১৫ দিনের মধ্যে কমিটিকে প্রতিবেদন জমা দিতে বলা হয়েছে বলে জানিয়েছেন ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স অধিদপ্তরের পরিচালক (অপারেশন ও মেইনটেন্যান্স) লেফটেন্যান্ট কর্নেল জিল্লুর রহমান।